একটানা বসে কাজ করলে বাড়ে ক্যান্সারের আশঙ্কা!

আমরা যারা অফিস ডেস্কে বসে কাজ করি, তাদের শাড়িরিক মুভমেন্ট এমনেতেই অনেক কম হয়। আর দেখা দেয় নানা ধরনের শারীরিক সমস্যা। তাছাড়া একটানা বসে কাজ করার ফল কতটা মারাত্মক হতে পারে তানিয়ে বহুবার সতর্ক করা হয়েছে বিভিন্ন গবেষণায়। এবার আরো চমকে দেওয়ার মতো তথ্য দিলেন মার্কিন ‌যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ক্যান্সার ইনস্টিটিউটের বিজ্ঞানীরা।

এক সময়ে বিজ্ঞানীদের দাবি ছিল দিনে টানা ১ ঘণ্টা বসে টিভি দেখা ব্রেস্ট ও কোলোন ক্যান্সারের সম্ভাবনা বাড়িয়ে দেয়। এবার বলা হচ্ছে একটানা বসে কাজ করলে লাং ও নেক ক্যান্সারসহ মোট ৯ ধরনের ক্যান্সারের সম্ভাবনা বহুগুণ বেড়ে ‌যেতে পারে।

ন্যাশনাল ক্যান্সার ইনস্টিটিউটের বিজ্ঞানী চার্লস ম্যাথু একটি গবেষণাপত্রটি প্রকাশ করেছেন। সেখানে বলা হচ্ছে, বাইরে ‌যাওয়া বা হালকা শারীরিক পরিশ্রমের প্রধান বাধা টিভি। এর থেকে বাঁচতে হবে।

২০০৮ সালে মার্কিন নাগরিকদের জন্য শরীরিক পরিশ্রমের ‌যে গাইডলাইন দেওয়া হয় সেখান বলা হয়, দিনে কমপক্ষে ৫ ঘণ্টা শরীরিক পরিশ্রম করা প্রয়োজন। এছাড়া সপ্তাহে অতিরিক্ত ২ ঘণ্টা। নিয়মিত ব্যায়াম করলে শুধুমাত্র আপনার অ্যাব ঠিক রাখে তাই নয়, বরং মৃত্যুর জন্য ‌যে সব কারণ দায়ি তা অনেকটাই প্রতিহত করে।

আধুনিক জীবনে অনেকেই ঘণ্টার পর ঘণ্টা বসে কাজ করে থাকেন। এর থেকে তৈরি হচ্ছে কম বয়সে ডায়বেটিস, স্ট্রোক, হার্টের অসুখ, উচ্চ রক্তচাপ, মস্তিস্কের রোগ, ক্যান্সার ও শ্বাসপ্রশ্বাসের সমস্যা। সপ্তাহে মাত্র সাত ঘণ্টা শারীরিক পরিশ্রম করলে ওইসব সম্ভাবনা ২০ শতাংশ কমিয়ে ‌যেতে পারে বলে মনে করছেন বিজ্ঞানীরা।