জঙ্গিবাদ ও মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, ‘এবার আমাদের প্রথম চ্যালেঞ্জ হবে জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতির বাস্তবায়ন। আমরা আগেও জঙ্গিবাদকে মাথাচাড়া দিয়ে উঠতে দেইনি, আগামী দিনেও দেব না।’

দ্বিতীয়বারের মতো স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব পাওয়ার পর মঙ্গলবার সচিবালয়ে তার নিজ দপ্তরে তাৎক্ষণিক এক প্রতিক্রিয়ায় সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন কামাল।

তিনি বলেন, ‘আমরা মাদকের বিরুদ্ধেও শক্ত অবস্থানে থাকতে চাই। আগের যেকোনো সময়ের মতো এবারও মাদকের ক্ষেত্রে থাকবে জিরো টলারেন্স নীতি। যেকোনো মূল্যে সমাজ থেকে মাদক দূর করা হবে।’

সন্ত্রাস প্রতিরোধে আগের যেকোনো সময়ের চেয়ে বেশি কাজ করা হবে বলেও তিনি উল্লেখ করেন। মন্ত্রী বলেন, ‘ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী অত্যন্ত দক্ষতার সঙ্গে সন্ত্রাস দমনে কাজ করেছে। যেকোনো চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা ও আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে এখন তারা আরো বেশি প্রস্তুত।’

‘বিএনপি যদি আগামী দিনে কোনো আন্দোলন সংগ্রামে অংশ নেয় নিতে পারে। কারণ এটা যেকোনো রাজনৈতিক দলের গণতান্ত্রিক অধিকার। তবে আন্দোলনের নামে নাশকতা করতে চাইলে যেকোনো উপায়ে তা প্রতিহত করা হবে।’ যোগ করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

নিজ দপ্তর সম্পর্কে মন্ত্রী বলেন, ‘যেহেতু এর আগেও আমি এই মন্ত্রণালয়ে দায়িত্ব পালন করেছি, তাই যেসব কাজ অসমাপ্ত রয়েছে সেগুলো সম্পাদনই হবে আমার বড় চ্যালেঞ্জ।’