বেনাপোলে যাত্রীর পায়ুপথে মিলল ১২ পিস সোনার বার

বেনাপোল চেকপোস্টে মঙ্গলবার বেলা ১১টায় ১২ পিস সোনার বারসহ মহিউদ্দিন (২৮) নামে এক যাত্রীকে আটক করেছে কাস্টমস শুল্ক গোয়েন্দা। আটক মহিউদ্দিন কুমিল্লা জেলার তিতাস উপজেলার কান্দি গ্রামের শাহারিয়া ভূঁইয়ার ছেলে। যার পাসপোর্ট নম্বর- ৩০০৮৮৫২০৪। বেনাপোল কাস্টমস শুল্ক গোয়েন্দা উপ-পরিচালক সাইফুর রহমান বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সকাল সাড়ে ৮টা থেকে চেকপোস্টে কাস্টম নজরদারি বাড়ানো হয়। ১০টায় ইমিগ্রেশন পার হওয়ার সময় সন্দেহজনকভাবে মহিউদ্দিনকে আটক করা হয়। পরে ক্লিনিকে নিয়ে এ-ক্সরে করে দেখা যায়, যাত্রীর পায়ুপথে সোনার বার রয়েছে।

তিনি বলেন, নিশ্চিত হওয়ার পর বেলা ১১টায় পায়ুপথে সোনার বারগুলো বের করা হয়। উদ্ধার সোনার ওজন ১ কেজি ৩০০ গ্রাম। যার মূল্য ৬৫ লাখ টাকা। সোনার বারগুলো কাস্টম গোডাউনে জমা ও বেনাপোল পোর্ট থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

আটক মহিউদ্দিন বলেন, আমি ঢাকার মামুন নামে এক বন্ধুর কাছ থেকে সোনার বারগুলো এনেছি, কলকাতার সুবাস নামে এক সোনা ব্যবসায়ীর নিকট পৌঁছে দেওয়ার জন্য। ১৪ হাজার টাকার বিনিময়ে আমি এ কাজটি করেছি।