যশোরে বোমা হামলায় তরুণলীগ নেতা নিহত

যশোরে বোমা হামলায় মনিরুল ইসলাম নামে তরুণলীগের এক নেতা নিহত হয়েছেন। রবিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১১টার পর শহরের পালবাড়ি ভাস্কর্যের মোড়ে এই ঘটনা ঘটে। এ সময় সন্ত্রাসীদের হামলায় আহত হন সন্তোষ ঘোষ নামে আরেকজন। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক।

নিহত মনিরুল পুলিশ লাইন টালিখোলা এলাকার ফজলুর রহমানের ছেলে। টালিখোলা এলাকার জমিজমা বিক্রি করে দিয়ে সম্প্রতি তারা পাগলাদহ এলাকায় আসেন। তিনি আওয়ামী লীগ নেতা শাহীন চাকলাদারের অনুসারী ছিলেন বলে জানা গেছে। আর আহত সন্তোষ ঘোষ পুরাতন কসবা ঘোষপাড়া এলাকার নারায়ণ ঘোষের ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রাত সাড়ে ১১টার দিকে মনিরুল ও সন্তোষ পালবাড়ি মোড়ে বসেছিলেন। এ সময় পালবাড়ি এলাকার টিপু,সাইদুল রবিউলসহ ৭-৮ সন্ত্রাসী তাদের লক্ষ্য করে পরপর ছয়টি বোমা নিক্ষেপ করে। বোমার আঘাতে মনিরুলের মাথাসহ শরীর ক্ষতবিক্ষত হয়ে যায়। এরপর সন্ত্রাসীরা তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপায়। বোমার আঘাতে সন্তোষও গুরুতর আহত হন।

পরে আশপাশের লোকজন দুজনকে উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেল কর্তব্যরত চিকিৎসক মনিরুলকে মৃত ঘোষণা করেন।

চিকিৎসক কল্লোল কুমার সাহা জানান, হাসপাতালে আনার আগেই মনিরুলের মৃত্যু হয়েছে। তার শরীরে বোমার স্প্লিন্টার ও ধারালো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে। আর সন্তোষের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

স্থানীয় কয়েকজন জানান, চাঁদাবাজি ও এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে আওয়ামী লীগের বিবদমান দুই গ্রুপের দ্বন্দ্বের কারণে এই খুনের ঘটনা ঘটেছে। তারা আরও জানান, সম্প্রতি মনিরুলের ভাই শাহরিয়ার ওই এলাকায় জমি কেনেন। এই বাবদ সন্ত্রাসী টিপু, সাইদুল, মোস্ত তার কাছে চাঁদা দাবি করেন। চাঁদা না দেয়ায় মাস দেড়েক আগে তারা শাহরিয়ারের ওপরও হামলা করেছিল।

উপশহর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য এহসানুল হক লিটু জানান, সন্ত্রাসীরা মনিরুল ও সন্তোষকে লক্ষ্য করে বোমা মারে, গুলি ছোড়ে। পরে তাদের কোপানো হয়।

জেলা যুবলীগের প্রচার সম্পাদক জাহিদ হোসেন মিলন জানান, নিহত মনিরুল জেলা তরুণলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন। আর আহত সন্তোষ যুবলীগ কর্মী। হতাহত দুজনই জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার অনুসারী বলেন জানবান মিলন।

জানতে চাইলে কোতয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম আজমল হুদা জানান, কে বা কারা এই হামলা করেছে পুলিশ এখনো নিশ্চিত হতে পারেনি। তবে খুনিদের ধরতে পুলিশি অভিযান শুরু করেছে।