21 ফেব্রুয়ারি 2017

বাগেরহাটে মুক্তিযোদ্ধার বাড়িতে হামলা আটক ১

170110-Bagerhatখুলনানিউজ.কম:: বাগেরহাটের কচুয়া উপজেলার ধোপাখালীর ছিটাবাড়ি গ্রামে সোমবার রাতে সন্ত্রাসীরা মুক্তিযোদ্ধা শেখ আতাহার হোসেনের বাড়িতে হামলা চালিয়ে বেপরোয়া মারপিট ও ভাংচুর করেছে। এসময় তারা কুপিয়ে, পিটিয়ে আতাহার হোসেনের ছেলে নেয়ামুল

শেখ (৩২) ও ফারুক শেখ (২০)  কে আহত করেছে। এর মধ্যে নেয়ামূলের হাতের একাধিক আঙ্গুল বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। তাকে রাতেই মুমূর্ষু অবস্থায় বাগেরহাট সদর হাসপাতাল থেকে খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। স্থানীয় প্রাক্তন মেম্বার মাহাতাবের ভাইপো বেল্লালের নেতৃত্বে সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা এ হামলা চালায়।

এখবর শুনে তাৎক্ষনিক সদর আসনের সংসদ সদস্য এ্যাড: মীর শওকাত আলী বাদশা ও পুলিশ সুপার পংকজ চন্দ্র রায় বাগেরহাট হাসপাতালে ছুটে যান। এ ঘটনায় মুক্তিযোদ্ধা শেখ আতাহার হোসেন বাদী হয়ে কচুয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ এ মামলায় মোস্তফা নামে এক আভিযুক্তকে আটক করেছে।   

মুক্তিযোদ্ধা শেখ আতাহার হোসেন কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে জানান, এলাকার জালটাকা ও মাদক ব্যবসা-সহ বিভিন্ন মামলার অভিযুক্ত সাবেক মেম্বার মাহাতাবের ভাইপো বেল্লালের নেতৃত্বে জুয়েল, ইমরান, মোস্তফা, সত্তার-সহ ১৫/২০ জনের সশস্ত্র একদল সন্ত্রাসী রাত ৮ টার দিকে তার বাড়িতে হামলা চালায়। তারা বাড়িঘর ভাংচুর ও মালামাল লুট করে।

এ সময় ঠেকাতে গেলে রামদা ও লোহার রড দিয়ে কুপিয়ে পিটিয়ে বাড়ির লোকজনদের আহত করে। আহতদের মধ্যে তার ছেলে নেয়ামূলের হাতের একাধিক আঙ্গুল বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। তিনি নিজেও আহত হন।

কচুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কবিরুল ইসলাম জানান, পুলিশ সুপারের নির্দেশে রাতেই্ মামলা হয়েছে। মুক্তিযোদ্ধা শেখ আতাহার হোসেন বাদী হয়ে ৮ জনের নাম উল্লেখ এবং অজ্ঞাত ৮/১০ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন। মামলার ৪ নং আসামী মোস্তফাকে আটক করা হয়েছে। বাকীদের আটকে জোর পুলিশী অভিযান চলছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

// মোঃ কামরুজ্জামান, বাগেরহাট: ১০-০১-২০১৭ //