29 জুন 2017

গাংনী উপজেলা চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ছাত্রলীগের বিক্ষোভ

170511-gangniখুলনানিউজ.কম:: মেহেরপুরের গাংনীতে সমন্নয় সভায় বিএনপি নেতা ও উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলীর যোগদান কে কেন্দ্র করে বিক্ষোভ মিছিল করেছে ছাত্রলীগ। বিক্ষোভ মিছিলের মুখে স্থগিত করা হয়েছে সমন্নয় সভা। পরে পুলিশ পাহারায় উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলী

কে তার বাসবভনে পৌছে দেয়া হয়। এসময় উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ের সামনে উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলীর বিরুদ্ধে নানা শ্লোগান দিয়ে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করে। মিছিল টি শহরের কয়েক টি সড়ক ঘুরে শহীদ মিনার চত্তরে এসে শেষ হয়।

পরে শহীদ মিনার চত্তরে সংক্ষিপ্ত সভায় গাংনী উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ইসমাইল হোসেন বলেন,প্রধানমন্ত্রীর হাত ধরে দেশ যখন এগিয়ে চলছে তখন বিএনপি নেতা উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলী তার বাড়িতে সরকার বিরোধী ষড়যন্ত্র করেছে।

এছাড়া সরকারী অর্থ লুটপাট করে জঙ্গিদের মদদ দিচ্ছে। তার নেতৃত্বেই গাংনীতে জঙ্গি ও সন্ত্রাসীরা লালিত পালিত হচ্ছে। মুরাদ আলীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেয়া পর্যন্ত ছাত্রলীগের আন্দোলন সংগ্রাম অব্যহত থাকবে বলে হুশিয়ারী উচ্চারন করেন তিনি। তিনি আরো বলেন,আওয়ামীলীগের কোন চেয়ারম্যান যদি জঙ্গি সন্ত্রাসী উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলীর পক্ষ অবলম্বন করেন তাদের বিরুদ্ধেও ছাত্রলীগ সোচ্ছার থাকবে।

গাংনী উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তৈহিদ হোসেন বলেন,বিএনপি নেতা উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলী জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের মদদদাতা। প্রধানমন্ত্রীর ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার সপ্ন বাস্তবায়নে বাধা গ্রস্থ করতেই সরকারী অর্থ লুটপাট করছে। সেসব অর্থ দিয়ে গাংনীতে জঙ্গিদের আস্তানা গড়ে তুলতে চান সে।

উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি তৈহিদ হোসেন আরো বলেন, উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেওয়া পর্যন্ত উপজেলা পরিষদ চত্তরে তার প্রবেশ নিষিদ্ধ করা হলো। উপজেলা চেয়ারম্যান যদি জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের লালন ও সরকারী অর্থ লুটপাট বন্ধ না করেন তাহলে ছাত্রলীগ তার দাঁত ভাঙ্গা জবাব দেবে।

গাংনী উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক বিপ্লব হোসেন বলেন,অতিতের মত ভবিষ্যতে ছাত্রলীগ নেতা কর্মীরা রাজপথে থেকে উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলীর সকল অপকর্ম বন্ধ রুখে দেবে। তিনি আরো বলেন,সরকার উন্নয়নের জন্য অর্থ বরাদ্দ দিলেও সরকার কে সমালোচনায় ফেলতে ও উন্নয়ন কর্মকান্ড বাধাগ্রস্থ করতে বরাদ্দকৃত টাকা লুটপাট করছে উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলী। অবিলম্বে সরকার কর্তৃক সকল বরাদ্দ জনম্মুখে প্রকাশ করে বাস্তবায়নের চিত্র তুলে ধরার আহবান জানান তিনি।

পৌর ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক ইমরান হাবিব বলেন,সম্প্রতি উপজেলা চেয়ারম্যান তার বাড়িতে সরকার কে উৎখাত করতে গোপন বৈঠক করে। ছাত্রলীগ নেতা কর্মীরা সে বৈঠক বানচাল করতে সক্ষম হয়েছে। সারা বাংলার ন্যায় গাংনীতেও সন্ত্রাসী ও জঙ্গিদের ঠায় হবেনা।  গাংনী থানার ওসি আনোয়ার হোসেন জানান,অপ্রতিকর ঘটনা এড়াতে উপজেলা চেয়ারম্যান কে পুলিশ পাহারায় তার বাড়িতে পৌছে দেয়া হয়েছে। উপজেলা পরিষদ চত্তরে পুলিশের পাশাপাশি র‌্যাব মোতায়েন করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

গাংনী উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরিফ উজ জামান জানান,জেলা প্রশাসনের নির্দেশে সমন্নয় সভা স্থগিত করা হয়েছে। ছাত্রলীগ নেতা কর্মীরা সভা কক্ষের বাইরে মিছিল শ্লোগান দিলে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। পরে পুলিশ পরিস্থিতি শান্ত করেন।

গাংনী উপজেলা চেয়ারম্যান মুরাদ আলী বলেন,সরকারী অর্থলুটপাট করা হয়নী। তার বিরুদ্ধে অপপ্রচার করছে ছাত্রলীগ। তিনি আরো বলেন,তার বাড়িতে সরকার উৎখাতের কোন ষড়যন্ত্রের বৈঠক হয়নী। সেখানে পৌর বিএনপির পরিচিতি সভা করা হয়েছিল।

// ফারুক আহমেদ, মেহেরপুর: ১১-০৫-২০১৭ //