24 ফেব্রুয়ারি 2017

কোন পাঁচ ধরনের পুরুষকে বিয়ে করা উচিত নয়

150414-marregeখুলনানিউজ.কম:: বিবাহিত জীবনে স্বামী-স্ত্রী, দুপক্ষেরই সহযোগিতা প্রয়োজন। তাই অনেক মেয়েই বিয়ের আগে ভাবেন তার স্বামী কেমন হবে।  কোন ধরণের পুরুষ স্বামী হিসেবে ভালো হবেন এবং কারা হবেন মন্দ তা বুঝে ওঠা সত্যিই খুবই কঠিন। আসুন জেনে নেওয়া যাক, স্বামী হিসেবে বাজে এমন পাঁচ

ধরনের পুরুষ সম্পর্কে। ১. নারীরা খারাপ ছেলেদের প্রতি একটু বেশিই আকৃষ্ট থাকেন। এই বিষয়টির সাথে বিজ্ঞানও একমত। নানা গবেষণায় দেখা দেয় নারীরা খারাপ পুরুষের প্রতি তীব্র আকর্ষণ অনুভব করেন। কিন্তু তিনি ভালো হয়ে যাবেন এই আশায় তাকে বিয়ে করার মতো ভুল কাজটি করতে যাবেন না একেবারেই। এইধরনের ছেলেরা স্বামী হিসেবে একেবারেই খারাপ হয়ে থাকেন।

২. অতিরিক্ত আত্মকেন্দ্রিক ধরণের পুরুষের সাথে খুব বেশীক্ষণ কথা বলাও সম্ভব হয়ে উঠে না। এই ধরণের পুরুষেরা নিজের প্রশংসায় নিজেই পঞ্চমুখ হয়ে থাকেন। নিজের রূপ-গুণ থেকে শুরু করে সবকিছুরই গুণগান সবসময় শুনতে থাকবেন এইধরনের পুরুষের মুখে। এবং তিনি স্বামী হিসেবেও নিজেকেই অনেক বেশি ভালো জাহির করতে থাকবেন যা অনেক সময়েই বিরক্তির কারণ হয়ে দাঁড়াবে।

৩. অতিরিক্ত মা ঘেঁষা ছেলেরা মানুষ হিসেবে ভালো হলেও স্বামী হিসেবে মোটেই সুবিধার নন যদি না তার ন্যায়-অন্যায় জ্ঞান প্রবল থাকে। কারণ মায়ের প্রতি শ্রদ্ধা, মমতা প্রদর্শন করতে গিয়ে সে অনেক সময়েই স্ত্রীর প্রতি কর্তব্য পালন করতে পারেন না। অন্যায় হতে দেখলেও মেনে নেন মাথা নিচু করে।

৪. আমি অনেক কিছু জানি, আমি তোমার থেকে বেশি জানি এই ধরণের ভাব ধরা পুরুষ থেকে একশ হাত দূরে থাকুন। কারণ এই ধরণের পুরুষেরা নিজেদের মতামতকেই বেশি প্রাধান্য দিয়ে থাকেন, নিজেকে অনেক বেশি জ্ঞানী মনের করেন বিধায় স্ত্রীর মতামত নেয়ার প্রয়োজনও অনুভব করেন না। এমন পুরুষেরা স্বামী হিসেবে একেবারেই ভালো নয়।

৫. অতিরিক্ত নিয়ন্ত্রণে রাখতে চাওয়া পুরুষের সাথে একেবারে মাটির মানুষের মতো নারীরাই ঘর করতে পারেন। কারণ প্রতিটি কাজে বাধা এবং নিজের আওতাধীন রাখতে চাওয়াই এইধরনের পুরুষের মূল লক্ষ্য যা আধুনিক এবং প্রগতিশীলা নারীরা একেবারেই সহ্য করতে পারেন না। সুতরাং সতর্ক থাকুন।

// ১৪-০৪-২০১৫ //